- Advertisement -

এয়ারপোর্টে লাগেজ হারানো সেই ব্যক্তি যা বললেন

সিঙ্গাপুর থেকে আসা প্রবাসী যাত্রীদের লাগেজ থেকে স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন, প্রসাধনীসহ অন্যান্য সামগ্রী চুরির অভিযোগ উঠেছে। গত রোববার (১৫ অক্টোবর) রাতে এ ঘটনা ঘটে। মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলার নিমতলা সুলপুর গ্রামের বাসিন্দা শিশির খান জানান, চার বছর সিঙ্গাপুরে নির্মাণ শ্রমিকের কাজ করার পর তিনি দেশে ফিরেছেন।

তিনি আরও জানান, সিঙ্গাপুরে বিমানে ওঠার সময় তার হাতব্যাগে স্বর্ণালংকার ছিল। ব্যাগটি বড় হওয়ায় বিমানের লোকদের পরামর্শে লক করে তাদের হাতে দেন। তারা তাকে একটি স্লিপ দেন। ঢাকায় বিমানবন্দরে লাগেজ পাওয়ার পর দেখেন, লক ভাঙা, চেইন খোলা। ব্যাগটি খুলে দেখেন স্বর্ণালংকারের বাক্সগুলো ফাঁকা। বাক্সগুলোতে একটা হার, দুটি চেইন, আধা ভরির ব্রেসলেট, চার সেট কানের দুল ছিল।

এ ছাড়া তিনটি মোবাইল ফোন, আরেকজনের কিছু দামি কসমেটিকস, পারফিউম ও মেডিসিন খোয়া গেছে।

প্রধানমন্ত্রী ও প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের কাছে খোয়া যাওয়া জিনিসপত্রের ক্ষতিপূরণ চেয়েছেন শিশির খান।

এর আগে বিমানবন্দরের ভেতরে ভুক্তভোগী যাত্রীদের কান্নাকাটির একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়। এরপরই নড়েচড়ে বসে বিমান কর্তৃপক্ষ। এ ঘটনায় সিভিল এভিয়েশন ও বিমানের সিকিউরিটি বিভাগ পৃথক দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। তবে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষের দাবি, ঢাকায় এমন ঘটনা ঘটেনি।

 

মন্তব্য লিখুন

Your email address will not be published.

প্রতিনিয়ত সি এন এন ঢাকার সর্বশেষ খবর মোবাইলে নোটিফিকেশন পেতে.. হ্যা বিস্তারিত