- Advertisement -

দুদক কার্যালয়ে ড. ইউনূস

গ্রামীণ টেলিকমের অর্থ আত্মসাৎ ও পাচারের মামলায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান নোবেলজয়ী ড. মুহাম্মাদ ইউনূস দুর্নীতি দমন কমিশনে (দুদকে) হাজির হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (৫ সেপ্টেম্বর) সকাল সোয়া ৯টার পর  দুদক কার্যালয়ের মূল গেইট দিয়ে ভেতরে প্রবেশ করেন তিনি। এ সময় সঙ্গে তার আইনজীবী ব্যারিস্টার আবদুল্লাহ আল মামুন, ব্যারিস্টার খাজা তানভীরসহ অন্যরাও উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে ড. ইউনূস চিঠি দিয়ে দুদককে জানিয়েছেন তিনি ৫ অক্টোবর তাদের কার্যালয়ে যাবেন।

দুদক সূত্রে জানা যায়, এই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দুদকের উপ-পরিচালক গুলশান আনোয়ার প্রধান গত ২৭ সেপ্টেম্বর এই নোটিশ পাঠিয়েছেন। এতে বলা হয়, ‘উপর্যুক্ত বিষয়ে বক্তব্য প্রদানের জন্য ৫ অক্টোবর বেলা সাড়ে ১২টায় দুর্নীতি দমন কমিশনের প্রধান কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে তদন্তকাজে সহযোগিতা করার আপনাকে অনুরোধ করা হলো।

আসামিদের বিরুদ্ধে শ্রমিকদের ২৫ কোটি ২২ লাখ টাকার বেশি ‘আত্মসাৎ ও পাচারের’ অভিযোগ গত ৩০ মে মামলা করে দুদক।

ব্যারিস্টার আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, ড. ইউনূস দেশের বাইরে জাতিসংঘের মহাসচিবের সাথে ছিলেন। দুদকের নোটিশের বিষয়ে জানার পর গত ১ অক্টোবর দেশে ফিরে এসেছেন। মঙ্গলবার (৩ অক্টোবর) দুদককে চিঠি দিয়ে উনি জানিয়ে দিয়েছেন তাদের কার্যালয়ে নির্দিষ্ট সময়ে উপস্থিত থাকার কথা।

উল্লেখ্য, ২০১০ সাল থেকে ২০২১-২২ অর্থবছর পর্যন্ত গ্রামীণ টেলিকম কোম্পানির শ্রমিক কর্মচারীদের মধ্যে নিট মুনাফার ৫ শতাংশ লভ্যাংশ বণ্টনে অনিয়মের দায়ে ঢাকার শ্রম আদালতে ড. ইউনূসের বিরুদ্ধে মামলার বিচার এখন চলমান।

মন্তব্য লিখুন

Your email address will not be published.

প্রতিনিয়ত সি এন এন ঢাকার সর্বশেষ খবর মোবাইলে নোটিফিকেশন পেতে.. হ্যা বিস্তারিত