- Advertisement -

রাষ্ট্র এখন যন্ত্রণার কারখানা হয়ে গেছে: ফখরুল

ঢাকা: বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, বর্তমান সরকার এতটাই ফ্যাসিবাদী যে, ভয়ে সংবাদকর্মীরাও সেন্সর করেন। রাষ্ট্র এখন রাষ্ট্র নেই।

রাষ্ট্র এখন যন্ত্রণার কারখানা হয়ে গেছে।

 

তিনি বলেন, আজ লজ্জা হয়, কষ্ট হয়, যখন দেখি, এই ভয়াবহ সরকারকে সমর্থন দিয়ে কোনো কোনো গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব এবং মালিক বক্তব্য দিচ্ছেন। আজ বিচারকেরাই ন্যায়বিচার ধ্বংস করছেন।

মঙ্গলবার (১৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবে ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপি মহাসচিব এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, আমরা সবাই ঘোর অন্ধকারের দিকে যাচ্ছি। স্বাধীনতার সময় যে স্বপ্ন আমরা দেখেছিলাম, তখন কল্পনা করিনি, এমন একটি সময় আমরা দেখব।

তিনি বলেন, আজ গণমাধ্যমও ভাগ হয়ে গেছে। একদিকে ভয়াবহ সরকারের উচ্ছিষ্টভোগীরা, আরেকদিকে গণতন্ত্র ও বাকস্বাধীনতা ফিরে পাওয়ার সংগ্রামীরা। যারা সংগ্রামে আছেন, তারা আজ নিগ্রহের শিকার। তাদের অনেকের আজ চাকরি নেই। সত্য বলার অপরাধে অনেক গণমাধ্যম আজ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। আজ মাহমুদুর রহমান ও শফিক রেহমান দেশছাড়া।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, কয়েকদিন আগে ঈশ্বরগঞ্জে ৩০ বছর আগের মামলায় ৯ জনকে মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়। সাবেক এমপি হাবিবকে ৭০ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। সারা দেশে বিচারের নামে চলছে অবিচার। আর এ থেকে আমাদের মুক্তি পেতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। জাতিকে রক্ষা করতে হবে।

মির্জা ফখরুল বলেন, আজ দেশনেত্রী খালেদা জিয়া গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় আছেন, তারেক রহমান নির্বাসিত থেকেও নেতৃত্ব দিচ্ছেন। আসুন সবাই মিলে এই দানবীয় সরকারকে বিদায় করে গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা করি।

ডিইউজে সভাপতি মো. শহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে সাধারণ খুরশীদ আলমের সঞ্চালনায় এতে আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির ঢাকা মহানগর উত্তরের ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক ফরহাদ হালিম ডোনার, তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সহ-সম্পাদক কাদের গনি চৌধুরী, বিএনপি মিডিয়া সেলের আহবায়ক জহির উদ্দিন স্বপন, সাংবাদিক নেতা রুহুল আমিন গাজী, এম. আব্দুল্লাহ, নুরুল আমিন রোকন, মুরসালিন নোমানী, এলাহি নেওয়াজ খান সাজু, রাশেদুল হক, সাঈদ খান প্রমুখ।

মন্তব্য লিখুন

Your email address will not be published.

প্রতিনিয়ত সি এন এন ঢাকার সর্বশেষ খবর মোবাইলে নোটিফিকেশন পেতে.. হ্যা বিস্তারিত